শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১০:৫৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
পাকুন্দিয়ায় নানা আয়োজনে পালিত হচ্ছে বিজয় দিবস
/ ১০১ Time View
Update : বুধবার, ১৬ ডিসেম্বর, ২০২০, ১১:০১ পূর্বাহ্ণ

১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবসে মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে পাকুন্দিয়া উপজেলা চত্ত্বরে জাতীয় পতাকা উত্তোলন ও বঙ্গবন্ধু ম্যুরালে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানিয়েছে পাকুন্দিয়া উপজেলা প্রশাসন।

যথাযথ মর্যাদা, বিনম্র শ্রদ্ধা আনন্দ-উদ্বেলের মধ্যদিয়ে উদযাপিত হলো বিজয় দিবস। লাখো শহীদ স্মরণে হাতে লাল সবুজের পতাকা আর রং-বেরঙের ফুল, হৃদয় নিংড়ানো গভীর শ্রদ্ধা আর ভালোবাসা নিয়ে হাজারো মানুষের ঢল নেমেছিলো বঙ্গবন্ধু ম্যুরালে।

যাদের রক্তের বিনিময়ে ২২ বছর পাকিস্তানি শাসনের অবসান ঘটেছিল, বিশ্বের মানচিত্রে অভ্যুদয় ঘটেছিল বাংলাদেশের; বিজয়ের সেই ৪৯তম বার্ষিকীতে দেশের সূর্য্য সন্তানদের স্মরণ করছে জাতি।

আজ বুধবার ভোর ৬টায় পাকুন্দিয়া উপজেলা চত্বর বঙ্গবন্ধু ম্যুরালে ফুল দিয়ে সেই মুক্তিসেনাদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান তারা।

শিশু থেকে বৃদ্ধ অধিকাংশের হাতে লাল-সবুজের পতাকা, মুখে ‘জয় বাংলা’ স্লোগানে মুখরিত হয়ে ওঠে উপজেলা চত্বর এলাকা। মহান এ দিবসে মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে আসে হাজারো জনতার খণ্ড খণ্ড দল। এসব দল থেকে ভেসে আসছিল নানা স্লোগান।

উপজেলা চত্বর ম্যুরালে বিজয়ের ৪৯ বছর উদযাপন করতে আসা হাজারো মানুষের মধ্যে ছিল বাঁধভাঙা উল্লাস। তবে এর মধ্যেও ৩০ লাখ শহীদের প্রতি বিনম্র শ্রদ্ধা আর ভালোবাসা জানাতে ভোলেননি তারা।

অনেককেই দেখা গেছে দেশাত্মবোধক গানের সঙ্গে কণ্ঠ মেলাতে। শহীদদের প্রতি সম্মান জানাতে তাদের হাতে ছিল নানা রংয়ের, নানা বর্ণের ফুল। আবার অনেকেই ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদনের পর নীরবতা পালন করেছেন।

এর আগে ভোর ৬টার দিকে মহান বিজয় দিবসে মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের স্মৃতির প্রতি ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন পাকুন্দিয়া উপজেলা প্রশাসন। এ সময় সশস্ত্র বাহিনীর একটি চৌকস দল শহীদদের রাষ্ট্রীয় অভিবাদন জানায়। বিউগলে বেজে ওঠে করুণ সুর। কিছুক্ষণ নীরবতা পালন করেন উপজেলা প্রশাসন।

রাষ্ট্রীয় সম্মান জানানোর পর শ্রদ্ধা জানান পাকুন্দিয়া মুক্তিযুদ্ধ সংসদ সভাপতি মো. মোতায়েম হোসেন স্বপন, উপজেলা চেয়ারম্যান মো. রফিকুল ইসলাম রেনু, উপজেলা চেয়ারম্যান ভারপ্রাপ্ত হারুন অর রশিদ জুয়েল, উপজেলা নির্বাহী অফিসার নাহিদ হাসান, উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি একেএম লুৎফর রহমান, পাকুন্দিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ সারোয়ার জাহান ও আওয়ামী সেচ্ছাসেবকলীগের যুগ্ন – আহবায়ক নূর মোহাম্মদ লোহানী ডাবলু প্রমুখ।

এরপর আওয়ামীলীগ, বিএনপি, যুবলীগ, যুব দল, ছাত্রলীগ, ছাত্রদল, কৃষকলীগ, কৃষক দল, সেচ্ছাসেবকলীগ, সেচ্চাসেবক দল, শ্রমীকলীগ, শ্রমীক দল, নবীনলীগ, নবীন দল, মুক্তিযোদ্ধালীগ, মুক্তিযুদ্ধা দল, মহিলালীগ, মহিলা দল সহ অঙ্গ-সংগঠনের নেতা-কর্মীদের নিয়ে শহীদ বেদিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন নেতাকর্মীরা। এ সময় আওয়ামী লীগ ও বছর বিএনপির জ্যৈষ্ঠ নেতারা তাদের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন।

 

এরপরই উপজেলা চত্বর এলাকা প্রশাসন ও দলীয়রা ত্যাগ করার পর সর্বসাধারণের জন্য খুলে দেওয়া হয় উপজেলা চত্বরের প্রধান ফটক।

আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
আমাদের ফেইসবুক পেইজ