Pakundia Pratidin
ঢাকাসোমবার , ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০
  1. আন্তর্জাতিক
  2. ইতিহাস
  3. ইসলাম ও জীবন
  4. কৃতি সন্তান
  5. জাতীয়
  6. জেলার সংবাদ
  7. তাজা খবর
  8. পাকুন্দিয়ার সংবাদ
  9. ফিচার
  10. রাজনীতি
  11. সাহিত্য ও সংস্কৃতি
আজকের সর্বশেষ সবখবর

সাদ-পন্থীদের ইজতেমা নিয়ে ক্ষোভ, ইমাম-ওলামা পরিষদ`র প্রতিহতের ডাক

প্রতিবেদক
Khat kolom
ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২০ ৫:৩০ অপরাহ্ণ
Link Copied!

তাবলীগের বিতর্কিত সাদ মতবাদ পন্থীরা জেলা ইজেতেমা  করার পায়তারা করছে। জেলার  পাকুন্দিয়া উপজেলায় ব্রহ্মপুত্র নদের তীরে আগামী ৫,৬ ও ৭ মার্চ এই জমায়েতের  ডাক দিয়েছে।  এ খবরে বাংলাদেশ আলমী শুরার তাবলীগের সাথী, কিশোরগঞ্জের সকল আলেম ওলামা ও সাধারণ মানুষের মাঝে তীব্র ক্ষোভ বিরাজ করছে। এদিকে সাদ মতবাদ পন্থীদের মজমা প্রতিহতের ডাক দিয়ে মঙ্গলবার সকালে উপজেলা পরিষদের সামনে মানববন্ধন ও বিক্ষোভের ডাক দিয়েছে উপজেলা তাবলীগের সাথী ও ‘ইমাম-ওলামা পরিষদ’।

তাবলীগের চলমান বিরোধের কারণে বিশ্ব ইজতেমার পর জেলা ওয়ারী কোন বিচ্ছিন্ন  ইজতেমা হবেনা।  উভয় পক্ষের এমন সমঝোতা হয়েছিল।  কিন্তু সাদ মতবাদ পন্থীরা অমান্য করে কথিত জেলা মজমা করার চেষ্টা শুরু করেছে। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ঘোলাটে পরিবেশ ও অস্থিরতা বিরাজ করছে।  এ বিষয়ে কিশোরগঞ্জ জেলা তাবলীগের সাথী ও আলেম ওলামা সমাজের পক্ষ থেকে জেলা প্রশাসক বরাবর স্মারকলিপি ও বিভিন্ন ভাবে আবেদন নিবেদন করে বন্ধের দাবী জানানো হয়েছে।
অবিলম্বে এই মজমা বন্ধ করতে পাকুন্দিয়ার সকল আলেম ওলামা  একমত। এর পরেও কতিপয় প্রভাবশালী ব্যাক্তির সহায়তায় মজমা করার পায়তারার চেষ্টায় তীব্র চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে।
তাবলীগের আলমী শুরার সাথীরা জানান, সাদ পন্থীরা আলেম ওলামা ও মাদ্রাসা বিরোধী।  সাধারণ মানুষ তাদের সাথে নেই৷ গুটিকয়েক লোকজন মুলধারা তাবলীগের কাজ বাধাগ্রস্ত করতে পরিকল্পিত ভাবে পরিবেশ ঘোলাটে করছে।
এদিকে সাদ পন্থীদের ইজতেমা বন্ধ করা না হলে, পাল্টাপাল্টি অবস্থানে আইনশৃঙ্খলার অবনতি ঘটার আসংকা দেখছে সচেতন মহল।
উপজেলার “খানকায়ে মুহিব্বিয়া মাদানিয়া ও জামিয়া মুহিব্বিয়া”তে পাকুন্দিয়া উপজেলার আলেম-ওলামারা এক পরামর্শ সভার আয়োজন করে। সেখান থেকে আগামী ৫,৬ ও ৭ মার্চ আয়োজিত মাওলানা সাদ পন্থীদের ইজতেমা প্রতিহতের ঘোষণা দেন ও সেটি বাস্তবায়নের জন্য কমিটি ঘোষণা করেন।
আগামী মঙ্গলবার সকালে পাকুন্দিয়া উপজেলা পরিষদের সামনে মানববন্ধন ও বিক্ষোভের ডাক দিয়েছে তারা।
গত ১৭ ফেব্রুয়ারী তারাকান্দি জামিয়া হুসাইনিয়া আসআদুল উলুম কউমি ইউনিভার্সিটি আয়োজিত ইসলাহী ও তালিমি জলসায় মাওলানা শামছুল ইসলাম হাজারো মানুষের উপস্থিতিতে মাওলানা সাদ পন্থীদের ইজতেমা প্রতিহতের ঘোষণা দেন।
এদিকে ৫,৬,৭ই মার্চ মাওলানা সাদ পন্থীদের জেলা ইজতেমার সফল করতে উপজেলার চরফরাদী ইউনিয়নে মির্জাপুর বালুরঘাট স্হানে ইজতেমার ১ম খুটি স্হাপন কাজ শুরু হয়।

error: Content is protected !!