Pakundia Pratidin
ঢাকারবিবার , ২৩ জুলাই ২০২৩
  1. আন্তর্জাতিক
  2. ইতিহাস
  3. ইসলাম ও জীবন
  4. কৃতি সন্তান
  5. জাতীয়
  6. জেলার সংবাদ
  7. তাজা খবর
  8. পাকুন্দিয়ার সংবাদ
  9. ফিচার
  10. রাজনীতি
  11. সাহিত্য ও সংস্কৃতি
আজকের সর্বশেষ সবখবর

আজও তিনি বাঙ্গালির তাজ

প্রতিবেদক
পাকুন্দিয়া প্রতিদিন ডেস্ক
জুলাই ২৩, ২০২৩ ৯:৫৭ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

পাভেল হায়দার চৌধুরী

কখনো পাবলিক স্পিকার বা পাবলিক লিডার হতে চাননি তাজউদ্দীন আহমদ। বঙ্গবন্ধুর বিশ্বস্ত নেতা হয়ে থাকতে চেয়েছেন সব সময়। কিন্তু ছয় দফার আন্দোলন থেকে শুরু করে মুক্তিযুদ্ধ পরিচালনায় তার প্রাজ্ঞ নেতৃত্ব তাকে জনগণের নেতা হিসেবেই চির স্মরণীয় করে রেখেছে।

আজ ২৩ জুলাই ৯৯তম জন্মদিনের আগে তাজউদ্দীন আহমদের ঘনিষ্ঠ তিনজন তার স্মৃতিচারণা করেছেন। তাদের ভাষায়, জাতীয় চার নেতার অন্যতম তাজউদ্দীন ছিলেন মেধাবী ও মানবিক মানুষ।

তাজউদ্দীন আহমদের স্মৃতিচারণা করে ছয় দফা আন্দোলনের সময় তার সঙ্গে কারাগারে যাওয়া জাতীয় পার্টির (জেপি) সাধারণ সম্পাদক শেখ শহিদুল ইসলাম দেশ রূপান্তরকে বলেছেন, ‘সব সময়ই কারাগারে তিনটি কাজ করতেন তিনি। লেখাপড়া, বাগান পরিচর্যা ও বন্দিদের দুঃখ-দুর্দশা শুনতেন। তার বাগান পরিচর্যার কাজের সঙ্গী হওয়ার সৌভাগ্য হয়েছে আমার।’

১৯৬৮ সালে ছয় দফা আন্দোলনের সময় আরেকটি মামলায় গ্রেপ্তার হয়ে তখন কারাগারে ছিলেন শেখ শহিদুল ইসলাম। তিনি বলেন, ‘কারাগারের যে সাধারণ বন্দিরা ছিল, তাদের অভিযোগগুলো তাজউদ্দীন আহমদ গভীর মনোযোগ দিয়ে শুনতেন এবং কারা কর্তৃপক্ষের কাছে তিনি এগুলো জানানোর চেষ্টা করতেন সাহায্য করার জন্য। এর মধ্য দিয়ে সাধারণ মানুষের প্রতি তার সহমর্মিতা প্রকাশ পেত। কারাভ্যন্তরে তার সান্নিধ্যে থেকে আমি অনেক রাজনৈতিক জ্ঞান অর্জন করেছি; বিশেষ করে তত্ত্বগত জ্ঞান অর্জন করতে সক্ষম হয়েছি, এটা আমার সৌভাগ্য।’

পাপ্র/সুআআ